২৭ মে ২০২০ ৬:২২:০৬
logo
logo banner
HeadLine
২৬ মে : দেশে আজ শনাক্ত আরও ১১৬৬, মৃত ২১ * বায়ুচাপের তারতম্যে, সমুদ্রবন্দরসমূহে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত * করোনা সংকটে দরিদ্রদের পাশে দাঁড়াতে সমাজের বিত্তবানদের প্রতি আহবান রাষ্ট্রপতির * যথাযোগ্য মর্যাদায় সারাদেশে পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপন * যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের জন্য প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা ও ঈদ উপহার * ২৫ মে : চট্টগ্রামে শনাক্ত আরও ১৭৯ * যুক্তরাষ্ট্রে পিপিই রপ্তানি শুরু করলো বাংলাদেশ * ২৫ মে : দেশে আজ শনাক্ত আরও ১৯৭৫, মৃত ২১ * ২৪ মে : চট্টগ্রামে আরও ৬৫ জনের করোনা শনাক্ত * আজ পবিত্র ঈদুল ফিতর, রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা * করোনায় মারা গেলেন এনএসআই কর্মকর্তা সন্দ্বীপের নাছির উদ্দিন * সন্দ্বীপবাসীকে পবিত্র ইদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানালেন মেয়র * ২৪ মে : দেশে আজ শনাক্ত আরও ১৫৩২, মৃত ২৮ * করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত চলবে সরকারি সহায়তা, জীবন-জীবিকার স্বার্থে চালু করতে হবে অর্থনৈতিক কর্মকান্ড - প্রধানমন্ত্রী * সন্ধ্যায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা * ২৩ মে : চট্টগ্রামে নতুন শনাক্ত ১৬৬ * করোনাকালীন সঙ্কটে পড়া সন্দ্বীপ পৌরসভার কর্মহীনদের বরাবরে সরকারের দেয়া ২৫০০ টাকা ছাড় শুরু * ২৩ মে : দেশে আজ শনাক্ত আরও ১৮৭৩, মৃত ২০ * বিদায় মাহে রমজান, আজ জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির সভা * হালদায় ১৪ বছরের সর্বোচ্চ রেকর্ড, ২৫ হাজার ৫৩৬ কেজি ডিম সংগ্রহ * ২২ মে : চট্টগ্রামে নতুন শনাক্ত ১৬১ * সন্দ্বীপ পৌরসভার জাটকা আহরণে বিরত জেলেদের মাঝে চাল বিতরণ * ২২ মে : দেশে আজ শনাক্ত আরও ১৬৯৪, মৃত ২৪ * এসএসসির ফল ৩১ মে * ঈদে বাইরে ঘোরাফেরা নয়, ঘরেই থাকুন: র্যা ব ডিজি * ঘূর্ণিঝড় আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তা প্রদানে দ্রুত পদক্ষেপ নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ * সন্দ্বীপ পৌরসভার কর্মহীন অসহায় মানুষদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর ইদ উপহার বিতরণ * ২১ মে : দেশে আজ শনাক্ত আরও ১৭৭৩, মৃত ২২ * বায়তুশ শরফের পীরের জানাজা ও দাফন সম্পন্ন * দুর্বল হয়ে পড়েছে আম্পান, বন্দরসমূহে ৩ নং স্থানীয় সতর্ক সংকেত *
     11,2019 Monday at 10:59:46 Share

সিইসির খন্ডিত বক্তব্য নিয়ে বিতর্ক করা উচিত নয় - মাহবুব-উল আলম হানিফ

সিইসির খন্ডিত বক্তব্য নিয়ে বিতর্ক করা উচিত নয় - মাহবুব-উল আলম হানিফ

আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) নির্বাচনী অনিয়মের অভিযোগ থেকে মুক্ত হওয়ার জন্য ইভিএম পদ্ধতির ব্যবহার যৌক্তিক বলে তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন। তাই সিইসির বক্তব্যের একটা খন্ডিত অংশ নিয়ে অহেতুক বিতর্ক করার কোন যৌক্তিকতা নেই। সেটা নিয়ে বিভ্রান্ত হওয়ারও কোন কারণ নেই। রবিবার আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের পক্ষ থেকে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে তিনি একথা বলেন। রাতে ব্যালট পেপারে সিল মেরে ভোটের বাক্স ভরা তথা মিডনাইট ভোট নিয়ে সিইসির বক্তব্যের এক প্রশ্নের জবাবে হানিফ বলেন, প্রধান নির্বাচন কমিশনারের বক্তব্যটা সঠিকভাবে উত্থাপন হয়েছে কিনা, আমরা জানি না। একটা খন্ডিত অংশ নিয়ে আলোচনা হচ্ছে। আমাদের দেশে প্রতিটি নির্বাচনের পরই পরাজিত দল এবং পরাজিত প্রার্থী নির্বাচন নিয়ে অভিযোগ করেন। তাই ইভিএম পদ্ধতি যদি ব্যবহার করা যায় তাহলে কিন্তু আর ব্যালটের সংশ্লিষ্টতা থাকে না। ব্যালট নিয়ে প্রার্থী বা দলের যে অভিযোগ সেটা নিয়ে অভিযোগ করার যৌক্তিকতা থাকে না।


তিনি বলেন, প্রধান নির্বাচন কমিশনার হয়ত এসব অভিযোগ থেকে মুক্ত হওয়ার জন্যই ইভিএম পদ্ধতির ব্যবহার যৌক্তিক বলে তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন। সেটা নিয়ে বিভ্রান্ত হওয়ার কোন কারণ নেই। বক্তব্যের একটা খন্ডিত অংশ নিয়ে এই ধরনের অহেতুক বিতর্ক করার কোন যৌক্তিকতা নেই। নির্বাচনী প্রক্রিয়ার অনিয়মের কারণে আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাই বিরোধীদলীয় নেত্রী থাকাকালীন জোরালো দাবির প্রেক্ষিতে এখন স্বচ্ছ ব্যালট বাক্স, ছবিসহ ভোটার তালিকা ও কিছুক্ষেত্রে ইভিএম পদ্ধতির ব্যবহার চালু হয়েছে বলেও জানান তিনি।


কিছু উপজেলায় স্থানীয় এমপিদের অবস্থানের কারণে ইসি ভোট গ্রহণ স্থগিত করেছে। নির্বাচনী আচরণবিধি ভঙ্গের কারণে এসব এমপির বিরুদ্ধে দলের পক্ষে সাংগঠনিক কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে কিনা? এমন প্রশ্নের জবাবে হানিফ বলেন, সংসদ সদস্যরা তাদের আচরণবিধি লঙ্ঘন করে স্থানীয় নির্বাচন প্রক্রিয়ায় উপস্থিত হওয়ার কারণেই কিন্তু নির্বাচন কমিশন ওই এলাকার নির্বাচন স্থগিত করেছে। এটার মধ্য দিয়ে নির্বাচন কমিশন আবারও প্রমাণ করেছেন, অবাধ, নিরপেক্ষ, সুষ্ঠু করার জন্য তারা বদ্ধপরিকর। আর যে সমস্ত সংসদ সদস্য এই ধরনের আচরণবিধি লঙ্ঘন করেছেন তাদের বিরুদ্ধে অবশ্যই তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ করে সাংগঠনিকভাবে ব্যবস্থা নেব।


প্রথম ধাপে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের পরিবেশ নিয়ে হানিফ বলেন, আমাদের লক্ষ্য ছিল নির্বাচনটা অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ও অংশগ্রহণমূলক হোক। এখন অবধি আমাদের কাছে যে তথ্য এসেছে, আমরা যতটুকু জেনেছি, নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ হয়েছে। দুই-একটি জায়গায় বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটেছিল। সে কারণে দুই-একটি ভোট কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ স্থগিত করা হয়েছে। তবে সব মিলিয়ে ভোটের পরিবেশ-পরিস্থিতি অত্যন্ত ভাল রয়েছে। কোথাও কোন অপ্রীতিকর ঘটনার তথ্য পাওয়া যায়নি। তিনি বলেন, নির্বাচনে জয়-পরাজয় আছেই। নির্বাচনে পরাজিত হলেই অভিযোগ করে নির্বাচন থেকে দূরে থাকা কোন রাজনৈতিক দলের শুভ বুদ্ধির পরিচয় বহন করে না।


বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়ার বিএসএমএমইউ’তে চিকিৎসা নিতে অনীহা নিয়ে এক প্রশ্নের জবাবে হানিফ বলেন, উনি যদি নিজেকে সেই পরিমাণ অসুস্থ বোধ না করেন তাহলে তো চিকিৎসা নিতে অনীহা প্রকাশ করতেন না। আমি যদি সুস্থ মানুষ থাকি, আমাকে কেউ জোর করে চিকিৎসা দিতে চাইলে আমি কি নেব? আমি হয়ত অনীহাই প্রকাশ করব। উনি হয়ত নিজেকে সুস্থ মনে করছেন বা যেকোন কারণে মনে করছেন, এই মুহূর্তে তার চিকিৎসার প্রয়োজন নেই। সে কারণে অনীহা প্রকাশ করতে পারেন। আর একজন দন্ডপ্রাপ্ত কয়েদীর সব কিছুর দায়ভার কারাকর্তৃপক্ষের। কোন কয়েদী অসুস্থ হলে কারাবিধি অনুযায়ী কারা কর্তৃপক্ষ তার চিকিৎসা সেবা দিয়ে থাকেন। বেগম জিয়াকে সর্বোচ্চ চিকিৎসা দেয়ার জন্য কারাকর্তৃপক্ষ বিভিন্ন সময়ে পদক্ষেপ নিয়েছেন।


সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল এমপি, দফতর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ এমপি, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক এ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক হারুনুর রশীদ, শিক্ষা ও মানবসম্পদ সম্পাদক শামসুন্নাহার চাঁপা ও কার্যনির্বাহী সদস্য এসএম কামাল হোসেন।


 

User Comments

  • রাজনীতি