১৫ মে ২০২১ ১৪:৪০:২৫
logo
logo banner
HeadLine
১৪ মে, ২০২১ : দেশে নতুন আক্রান্ত ৮৪৮ জন, মারা গেছেন ২৬ জন, সুস্থ হয়েছেন ৮৫২ জন * যথাযোগ্য মর্যাদায় সারাদেশে পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপন * সবাইকে বর্তমান অবস্থানে থেকেই স্বাস্থ্য নির্দেশিকা মেনে ঈদ উদযাপনের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর * ১৩ মে, ২০২১ : দেশে ৯.৫৮ হারে নতুন শনাক্ত ১২৯০, মৃত্যু ৩১, সুস্থ ১৩৭০ জন * সৌদি আরবসহ মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতে উদযাপিত হচ্ছে ঈদুল ফিতর * দেশের আকাশে কোথাও চাঁদ দেখা যায়নি, ঈদ শুক্রবার * ১২ মে, ২০২১ : ৭.৪৫ হারে দেশে নতুন শনাক্ত ১১৪০, মৃত ৪০, সুস্থ ২৯২৮ * মিতু হত্যায় বাবুল আকতারের ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর * শিমুলিয়া – বাংলাবাজার ফেরিতে গাদা্গাদি ও ভীড়ের চাপে ৫ জনের মৃত্যু * আজ চাঁদ দেখা গেলে কাল ঈদ, দেখা না গেলে শুক্রবার * আল-আকসা মসজিদে হামলার নিন্দা প্রধানমন্ত্রীর * দেশে করোনা টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছেন প্রায় ৩৬ লাখ মানুষ * ১১ মে ২০২১ : ৮.৬৭ হারে নতুন শনাক্ত ১২৩০, মৃত ৩৩, সুস্থ ৩০৪৪ জন * করোনার ভয়াবহ সময়ে ঈদ উপলক্ষে ঘরমুখো মানুষ সুইসাইড সিদ্ধান্ত নিচ্ছে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী * ১০ মে ২০২১ : ৮.৯৯ হারে নতুন শনাক্ত ১৫১৪, মৃত ৩৮, সুস্থ ২১১৫ জন *
     10,2021 Monday at 20:25:05 Share

জঙ্গি সনাক্তকরণের বিজ্ঞাপন সম্প্রীতি বাংলাদেশের নয়: পীযূষ

জঙ্গি সনাক্তকরণের বিজ্ঞাপন সম্প্রীতি বাংলাদেশের নয়: পীযূষ

বিডিনিউজ :: সন্দেহভাজন জঙ্গি সদস্য সনাক্তকরণের কিছু নির্দেশক তুলে ধরে গণমাধ্যমে প্রকাশিত বিজ্ঞাপনটিকে ‘অনভিপ্রেত’ ও ‘অনাকাঙ্ক্ষিত’ আখ্যা দিয়ে সেটি ‘সম্প্রীতি বাংলাদেশের’ পক্ষ থেকে দেওয়া হয়নি বলে দাবি করেছেন সংগঠনটির আহ্বায়ক পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায়।

বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের তফাজ্জল হোসেন মানিক মিয়া হলে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, প্রকাশিত জঙ্গি সনাক্তকরণ বিজ্ঞাপনটি উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। দেশবাসীকে বিভ্রান্ত করতেই মুক্তিযুদ্ধের বিরোধী শক্তি এমন অপপ্রচার চালিয়েছে। ওই বিজ্ঞাপনের সাথে সম্প্রীতি বাংলাদেশের কোনো সম্পর্ক নেই।

গত সোমবার একাধিক জাতীয় পত্রিকায় ‘সন্দেহভাজন জঙ্গি সদস্য সনাক্তকরণের (রেডিক্যাল ইন্ডিকেটর) নিয়ামকসমূহ’ শিরোনামে ‘সম্প্রীতি বাংলাদেশের’ নামে একটি পোস্টার ছাপানো হয়। সেখানে দাঁড়ি রাখা ও টাখনুর উপর কাপড় পরাসহ বেশ কিছু আচারকে জঙ্গি লক্ষণ হিসেবে তুলে ধরা হয়েছে।

অন্য লক্ষণগুলোর মধ্যে ধর্ম চর্চার প্রতি ঝোঁক; গায়ে হলুদ, জন্মদিন পালন, গান বাজনা থেকে গুটিয়ে রাখা; মিলাদ, শবেবরাত, শহীদ মিনারে ফুল দেওয়াকে ধর্মীয় দৃষ্টিকোণ থেকে সমালোচনা করা ইত্যাদি আচরণের কথা তুলে ধরা হয়েছে।

নাট্যব্যক্তিত্ব পীযূষ সাংবাদিকদের বলেন, সম্প্রীতি বাংলাদেশ মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় দৃঢ়ভাবে বিশ্বাসী এবং সব ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধাশীল একটি সামাজিক সংগঠন। সব ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থেকে অসাম্প্রদায়িক জাতিসত্বার পক্ষে কাজ করে চলেছে।

জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে ‘জিরো টলারেন্সের’ ঘোষণার কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে তিনি বলেন, সম্প্রীতি বাংলাদেশ সব মহলের সক্রিয় সহযোগিতায় সব ধরণের উগ্রবাদ, সন্ত্রাসবাদ, ঘৃণ্য সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে সব সময় সক্রিয় রয়েছে এবং ভবিষতেও থাকবে। 

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, বাংলাদেশে থাকবে আন্তঃধর্ম সুসম্পর্ক। থাকবে না কোনো প্রকার বৈষম্য, থাকবে না কোনো নিপীড়ন-নির্যাতন। অত্যাচারীর খড়্গ কৃপাণ বাংলাদেশকে রক্তাক্ত ও কলুষিত করবে না।

নিরাপত্তা বিশ্লেষক মোহাম্মদ আলী শিকদার, সাবেক সচিব নাসির উদ্দিন আহমেদ, ইসলামী ঐক্যজোট চেয়ারম্যান মাওলানা মিছবাহুর রহমান চৌধুরী ও বাংলাদেশ খ্রিস্টান অ্যাসোয়িশনের সভাপতি উইলিয়াম প্রলয় সমাদ্দার এসময় উপস্থিত ছিলেন।

 

User Comments

  • অন্যান্য সংবাদ